কর্মবিরতিতে রাগীব-রাবেয়ার ইন্টার্ণ চিকিৎসকরা

নিউজ নিউজ

ডেস্ক

প্রকাশিত: ১০:১৭ অপরাহ্ণ, মার্চ ২৪, ২০২০

কর্মক্ষেত্রে নিরাপত্তার দাবিতে কর্মবিরতিতে সিলেটের জালালাবাদ রাগীব-রাবেয়া মেডিকেল কলেজের ইন্টার্ণ চিকিৎসকেরা। চিকিৎসাসেবা প্রদানের সময় সুরক্ষা পোশাক (পিপিই) সরবরাহের নিশ্চয়তা না পাওয়ায় সোমবার (২৩ মার্চ) সকাল থেকে তারা কর্মবিরতি পালন করছে।

জানা যায়, রাগীব-রাবেয়া মেডিকেল কলেজে প্রায় ১৫০ জনের মতো ইন্টার্ন চিকিৎসক রয়েছে। করোনাভাইরাস সংক্রমনের পর থেকে চিকিৎসকরা পিপিই জন্য হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকের কাছে দাবি জানিয়ে আসছে।  গত কয়েক দিনে করোনাভাইরাস সংক্রমিত সন্দেহভাজন রোগীদের চিকিৎসা দিতে গিয়ে দুইজন ইন্টার্ন চিকিৎসক অসুস্থ হয়ে পড়ে।  এরপরও হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ পিপিই প্রদানের নিশ্চয়তা না দেয়ায় সোমবার সকাল থেকে তারা কর্মবিরতিতে গেছেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন ইন্টার্ন চিকিৎসক স্থানীয় গনমাধ্যমকে জানায়, হাসপাতালে ১৫০ জনের মতো ইন্টার্ন চিকিৎসক রয়েছে। প্রতিদিন সন্দেহজনক করোনাভাইরাস আক্রান্ত রোগী হাসপাতালে আসছে। তাদের সেবা দিতে গিয়ে অনেকে আতঙ্কিত এবং অসুস্থ হয়ে পড়ছে। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে বারবার জানানোর পরেও পিপিই এর সরবরাহ নিশ্চিত না হওয়ায় তাদের এই কর্মসূচি।

হাসপাতালের পরিচালক ডা. তারেক আজাদ গনমাধ্যমকে জানিয়েছেন, তারা চিকিৎসকদের জন্য মাস্ক, গ্লাভস এবং স্যানিটাইজার চাহিদামতো সরবরাহ করছেন। সারাদেশেই পিপিই সংকট রয়েছে। পিপিই সরবরাহ করার জন্য বিভিন্ন বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠানকে অর্ডার দেয়া হয়েছে।  তারা খুব দ্রুত এগুলো চিকিৎসকদের জন্য যোগাড় করার চেষ্টা করছেন।

তিনি আরও জানান, দুইদিন আগে সভা করে ইন্টার্ন চিকিৎসকদের পিপিই’র জন্য অপেক্ষা করতে বলা হয়েছে কিন্তু তারা কোনো আলোচনা ছাড়াই কর্মবিরতিতে গেছেন।  এখন পর্যন্ত তারা নিজস্ব উদ্যোগে ২৫টি এবং ওসমানী মেডিকেল হাসপাতাল থেকে ৫টি সহ মোট ৩০টি পিপিই সংগ্রহ করা হয়েছে। এগুলো আপাতত প্রয়োজনীয়তা বুঝে সরবরাহ করা হচ্ছে।

প্রসঙ্গত, সারাবিশ্বের মতো বাংলাদেশেও বৈশ্বিক মহামারি করোনাবাইরাসের প্রদুর্ভাব ঘটেছে।  এখন পর্যন্ত আক্রান্ত ৩৩ জন, যাদের মাধ্যে ১ জন চিকিৎসকসহ ৩ জন স্বাস্থ্যকর্মী রয়েছে।  হাসপাতালে চিকিৎসকদের নিরাপত্তায় নানা মহল থেকে জোর দাবি উঠেছে।  সরকার এবং স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় থেকে চিকিৎসকদের সব ধরনের নিরাপত্তা উপকরণ নিশ্চিতের আশ্বাস দেয়া হয়েছে।

আপনার মতামত দিন :