জাতীয় শোক দিবসে বিএমটিপি’র শ্রদ্ধা ও দোয়া মাহফিল

নিউজ নিউজ

ডেস্ক

প্রকাশিত: ২:১১ পূর্বাহ্ণ, আগস্ট ১৬, ২০২০

মেডিনিউজ রিপোর্ট : জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৫ তম শাহাদাত বার্ষিকী এবং জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন মেডিকেল টেকনোলজিস্টদের বৃহৎ পেশাজীবী রাজনৈতিক সংগঠন বঙ্গবন্ধু মেডিকেল টেকনোলজিস্ট পরিষদ (বিএমটিপি)।

শনিবার রাজধানীর ধানমন্ডি ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘরের সামনে রক্ষিত জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে সকালে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করে মহান এই নেতা সহ সকল শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান বঙ্গবন্ধু মেডিকেল টেকনোলজিস্ট পরিষদ (বিএমটিপি) এর কেন্দ্রীয় কমিটির নেতৃবৃন্দরা।

পরে বঙ্গবন্ধু মেডিকেল টেকনোলজিস্ট পরিষদ (বিএমটিপি) এর সভাপতি (ভারপ্রাপ্ত) মো. গোলাম সারোয়ার, সাধারণ সম্পাদক মো. আশিকুর রহমানের নেতৃত্বে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং ১৫ আগস্টের সকল শহীদদের রুহের মাগফিরাত কামনা করে দোয়া-মোনাজাত করা হয়।

দোয়া ও মোনাজাতে অংশ নেন বঙ্গবন্ধু মেডিকেল টেকনোলজিস্ট পরিষদ (বিএমটিপি) এর সকল নেতাকর্মীরা। এ সময় বঙ্গবন্ধু মেডিকেল টেকনোলজিস্ট পরিষদ (বিএমটিপি) এর সাধারণ সম্পাদক মো. আশিকুর রহমান বলেন, আজকের এই দিনে একদল বিভ্রান্ত দেশি-বিদেশি ষড়যন্ত্রকারী চক্রান্তের কারণে বঙ্গবন্ধু সপরিবারে শাহাদাত বরণ করেছেন। এই দিন আমাদের শোকের দিন। আমরা এই দিনটিতে শক্তি সঞ্চয় করি এবং শোককে শক্তিতে রুপান্তরিত করে জাতির জনকের স্বপ্নের বাংলাদেশ গড়তে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনাকে সহযোগিতা করি।

পরে বিকাল ৪:৩০ টায় নিপসম, মহাখালী বঙ্গবন্ধু মেডিকেল টেকনোলজিস্ট পরিষদ (বিএমটিপি) এর দলীয় কার্যালয়ে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানসহ তাঁর পরিবারের নিহত সকল শহীদদের রুহের মাগফিরাত কামনায় কোরআন তেলাওয়াত, দোয়া মাহফিল ও আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। সেসময় বঙ্গবন্ধু মেডিকেল টেকনোলজিস্ট পরিষদ (বিএমটিপি) এর সকল নেতকর্মী ও সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। কোরআন তেলাওয়াত ও দোয়া মাহফিল শেষে আলোচনা সভায় বক্তারা বলেন, মাত্র ৫৫ বছরের জীবনে বঙ্গবন্ধু এদেশের মাটি ও মানুষকে গভীর ভালবাসার বন্ধনে বেঁধে ছিলেন। বঙ্গবন্ধুর বিরোধিতাকারীরাও বিশ্বাস করেন, বঙ্গবন্ধুর জন্ম না হলে বাংলাদেশ স্বাধীন হতো না। বঙ্গবন্ধু জীবন দিয়ে আমাদের অমৃত দিয়ে গেছেন। তাঁর চেতনা ও আদর্শকে ধারণ করতে হবে। বঙ্গবন্ধু, বাংলাদেশ ও স্বাধীনতা এ তিনটি শব্দ ওতপ্রোতভাবে জড়িত। বঙ্গবন্ধুর আদর্শে উদ্বুদ্ধ হয়ে আমাদের সকলকে মানুষের কল্যাণে কাজ করে যেতে হবে।

সেই সাথে কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে চট্টগ্রাম সহ সারাদেশের ৫৫ টি জেলা কমিটিও বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন, কোরআন তেলাওয়াত, দোয়া মাহফিল এবং গরিব ও দুস্থদের মাঝে স্বাস্থ্য সুরক্ষা ও খাবার বিতরণ করেন।

আপনার মতামত দিন :